Tourism and Hospitality Management Subject Review In Bangla

0
3

উচ্চ মাধ্যমিক পাশ করার পর প্রতিটি শিক্ষার্থীর মূল লক্ষ্য থাকে একটা পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে চান্স পাওয়া।আর সেজন্য মুখোমুখি হতে হয় প্রতিযোগিতামূলক পরীক্ষার।প্রতিযোগিতামূলক পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হওয়ার পর বিষয় নির্বাচন নিয়ে অনেকেই সিদ্ধান্তহীনতায় ভুগে।আমরা সবাই চাই আমাদের পছন্দমত বিষয়ে পড়াশোনা করে সে অনুযায়ী চাকরি করে জীবনে প্রতিষ্ঠিত হতে। তবে বর্তমানে চাকরির বাজার খুব প্রতিযোগিতামূলক হয়ে উঠেছে।প্রতিযোগিতামূলক চাকরির বাজারে সহজেই চাকরি পেতে ট্যুরিজম এন্ড ম্যানেজমেন্ট বিভাগ হতে পারে আপনার প্রথম পছন্দ।ওয়ার্ল্ড ট্যুরিজম অর্গানাইজেশনের মতে, বর্তমানে পৃথিবীর সর্ববৃহৎ শিল্প হলো পর্যটন শিল্প। সারা বিশ্বে কর্মসংস্থানের দিক থেকে পর্যটন শিল্প সবচেয়ে এগিয়ে, মোট কর্মসংস্থানের প্রায় ১১ শতাংশ।সম্ভাবনাময় ক্ষেত্র হওয়ায় পর্যটন কেন্দ্রিক পড়াশোনার কদর দিনের পর দিন বেড়েই চলছে।আশা করি নিচের লেখাগুলো পড়লে এই সাবজেক্ট সম্পর্কে পূর্ণাঙ্গ ধারণা পাবেন।

ট্যুরিজম এন্ড হসপিটালিটি ম্যানেজমেন্টে কেন পড়বেন ?

পর্যটন শিল্প একটি সম্ভাবনাময় ক্রমবর্ধমান ক্ষেত্র হওয়ায় পর্যটন কেন্দ্রিক পড়াশোনার কদর দিনের পর দিন বেড়েই চলেছে।

বর্তমানে বাংলাদেশের অর্থনীতিতে আয়ের অন্যতম একটি উৎস পর্যটন শিল্প ও হোটেল বিজনেস।সরকার ট্যুরিজম ইন্ডাস্ট্রির ডেভেলপ করার জন্য ইতিমধ্যে বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রনালয় নামে আলাদা মন্ত্রণালয় গঠন করেছে।পর্যটন শিল্পের উন্নয়নের জন্য রয়েছে বাংলাদেশ ট্যুরিজম বোর্ড এবং বাংলাদেশ পর্যটন কর্পোরেশন।স্বাধীন এ দেশে রয়েছে অসংখ্য পর্যটন কেন্দ্র।

পর্যটন কেন্দ্রগুলো ডেভেলপ ও ব্যবস্থাপনার জন্য দরকার দক্ষ জনবল।রয়েছে আন্তর্জাতিক মানের ফাইভ স্টার হোটেল,রিসোর্ট এবং বিলাসবহুল রেস্টুরেন্ট।আর এসব আন্তজার্তিক মানের ফাইভ স্টার হোটেল,রিসোর্ট এবং বিলাসবহুল রেস্টুরেন্ট ব্যবস্থাপনার জন্য দরকার ট্যুরিজম এন্ড হসপিটালিটি ম্যানেজম্যান্ট বিভাগ থেকে স্নাতক স্নাতকোত্তর সম্পন্ন করা মেধাবী দক্ষ জনবল।যুগোপযোগী এই সাবজেক্টের কদর বাড়ার কারণে দেশের বিভিন্ন পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়,প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয় এবং কলেজে এই সাবজেক্ট চালু করা হয়েছে।আপনার লক্ষ্য যদি থাকে একটা কর্পোরেট লেভেলের ভালো বেতনের চাকুরী তাহলে নিঃসন্দেহে এই সাবজেক্টে পড়তে পারেন।

বিশ্বের বিভিন্ন দেশের ট্যুরিস্ট ডেস্টিনেশনগুলোর বিভিন্ন সমস্যা চিহ্নিতকরণ এবং সমাধান, বাংলাদেশ এবং দেশের বাইরের পর্যটন শিল্পের বর্তমান অবস্থা ,দেশী এবং বিদেশী ট্যুরিস্টের পরিসংখ্যান,পর্যটন খাত থেকে দেশী বিদেশী আয়ের পরিসংখ্যান,ডেস্টিনেশন ডেভেলপমেন্ট,নতুন মার্কেটপ্লেস তৈরির উপায়,কাস্টমার রিলেশনশীপ স্থাপন করার উপায় ,গ্লোবাল ইকোনমিতে ট্যুরিজমের অবদান, ট্র্যাভেল এন্ড ট্যুরিজম,হোটেল,মোটেল রিসোর্ট ম্যানেজমেন্ট ইত্যাদি।অভারঅল, ট্যুরিজম এন্ড হসপিটালিটি রিলেটেড যত কোর্স আছে সবগুলোই পড়ানো হয়।কমিউনিকেশন স্কিল বাড়ানোর জন্য প্রায়ই ফরমাল প্রেজেন্টেশন (গ্রুপ/সিঙ্গেল) নেয়া হয়।ট্যুরিস্ট ডেস্টিনেশন+অন্যান্য বিষয়ের উপর প্রায়ই এসাইনমেন্ট নেয়া হয়।নন-মেজর কোর্সও পড়ানো হয়।
পড়াশোনার ধরন ইংলিশ মিডিয়াম।

বিদেশে পড়াশোনা ও ক্যারিয়ার সম্ভাবনাঃ

ইংল্যান্ড,অস্ট্রেলিয়া, সুইজারল্যান্ড, ভারত, থাইল্যান্ড, মালয়েশিয়া, সিঙ্গাপুর,পোল্যান্ড,চীন,সাইপ্রাসসহ পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে ট্যুরিজম এন্ড হসপিটিলাটি ম্যানেজমেন্ট এ উচ্চ শিক্ষা গ্রহণের সুযোগ রয়েছে। এসব দেশে আপনি স্কলারশিপ নিয়ে উচ্চ শিক্ষা গ্রহণ করতে পারবেন।আর পড়াশোনা শেষে চাইলে দেশের বাইরেই উচ্চ বেতনের চাকরি নিতে পারবেন।

বাংলাদেশে এই সাবজেক্টের ক্যারিয়ার সম্ভাবনাঃ

ট্যুরিজম এন্ড হসপিটালিটি ম্যানেজমেন্ট এ বিবিএ এমবিএ কমপ্লিট করার পর আপনি আপনার পছন্দ অনুযায়ী যে কোন চাকরি করতে পারবেন। আপনার লক্ষ্য যদি হয় সাবজেক্ট রিলেটেড জব তাহলে আপনি সাবজেক্ট রিলেটেড জবে ঢুকতে পারবেন।আর আপনার লক্ষ্য যদি হয় বিসিএস কিংবা ব্যাংক কিংবা অন্যকিছু তাহলে সেটাও পারবেন।আপনার লক্ষ্য যদি হয় বিশ্ববিদ্যালয় এবং কলেজের শিক্ষক হওয়া তাহলে সেটাও পারবেন।কারণ এই সাবজেক্ট অলরেডি ৬ টি পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে ১৩-১৪ টি প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয়ে এবং ১৭-১৮ টি কলেজে পড়ানো হচ্ছে। প্রতি বছর দেশের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয় এবং কলেজে এই বিভাগ খোলা হচ্ছে ।ট্যুরিজমের অধ্যয়নরত শিক্ষার্থীদের জন্য সুখবর হচ্ছে সরকার দেশের বিভিন্ন সরকারি কলেজে স্নাতক পর্যায়ে এই বিষয় চালুর সিদ্ধান্ত নিয়েছে। উচ্চ মাধ্যমিক লেভেলেও এই সাবজেক্ট চালু হতে পারে। সো আপনি চাইলেই বিসিএস এ অংশগ্রহণ করে বিসিএস শিক্ষা ক্যাডার হতে পারবেন।এ বিষয়ে পড়াশোনা করে ফাইভ স্টার,ফোর স্টার লাক্সারিয়াস হোটেল,মোটেল, নামিদামি রেস্টুরেন্ট,বিমান বাংলাদেশে চাকরি করতে পারবেন।দেশের পর্যটনশিল্পের উন্নতির জন্য কাজ করছে সরকারি প্রতিষ্ঠান বাংলাদেশ পর্যটন করপোরেশন (বিটিসি)।বিটিসিতে প্রতিবছরই নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি দেওয়া হয়। এ ছাড়া ট্যুরিজম বোর্ডে নিয়োগের বেলায়ও ট্যুরিজম ও হসপিটালিটি ম্যানেজমেন্ট বিভাগ থেকে পাস করা ছাত্রছাত্রীরা অগ্রাধিকার পান।এ বিষয়ে পড়াশোনা করে এয়ার হোস্টেস ও কেবিন ক্রু হওয়ারও সুযোগ আছে। ক্যাটারিং হাউসগুলোতেও আছে চাকরির সুবর্ণ সুযোগ। গাজীপুর, রাঙামাটি, বান্দরবান, খাগড়াছড়িসহ দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে অনেক রিসোর্ট আছে।

এসব রিসোর্টে অনেক চাকরির সুযোগ রয়েছে। বিভিন্ন ট্রাভেল এজেন্সিতেও আছে চাকরির সুযোগ।চাইলে ট্যুর গাইড হিসেবে কাজ করতে পারবেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here